spot_img
32 C
Dhaka
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img

৫ই অক্টোবর, ২০২২ইং, ২০শে আশ্বিন, ১৪২৯বাংলা

মাংসজাতীয় পণ্যসহ ৪৩ ধরনের পণ্য রপ্তানিতে মিলবে নগদ সহায়তা

- Advertisement -

নিউজ ডেস্ক, সুখবর বাংলা: চলতি অর্থবছর বস্ত্র খাতের পাঁচটি উপখাতসহ ৪৩ ধরনের পণ্য রপ্তানিতে নগদ সহায়তা দেবে সরকার। আগের মতোই ১ থেকে ২০ শতাংশ পর্যন্ত নগদ সহায়তা মিলবে। এবার কেবল নতুন করে হালাল প্রক্রিয়াজাত মাংস রপ্তানিতে ১০ শতাংশ হারে নগদ সহায়তার বিষয়টি যুক্ত করা হয়েছে।

সরকারি সিদ্ধান্তের আলোকে এক প্রজ্ঞাপনে সরকারের এ সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

শতভাগ হালাল মাংস রপ্তানিতে বেশ আগে থেকে নগদ সহায়তা দিয়ে আসছে সরকার। এর সঙ্গে যুক্ত হলো শতভাগ হালাল উপায়ে প্রক্রিয়াজাত মাংস রপ্তানিতে নগদ সহায়তার বিষয়টি। এ–জাতীয় পণ্য রপ্তানি করলে ২০ শতাংশ হারে সহায়তা দেওয়া হবে।

চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরে নগদ সহায়তার তালিকায় এ পণ্য যুক্ত করা হয়েছে। গত অর্থবছরের মতো এবারও ৪৩ খাতের বিভিন্ন ধরনের পণ্য রপ্তানির বিপরীতে সরকার ১ থেকে ২০ শতাংশ পর্যন্ত নগদ সহায়তা দেবে। গত ২০২১-২২ অর্থবছরে চা, দেশে তৈরি বাইসাইকেল ও এর যন্ত্রাংশ, দেশে তৈরি এমএস স্টিল পণ্য ও দেশে উৎপাদিত সিমেন্ট শিট রপ্তানি প্রণোদনা বা নগদ সহায়তার আওতাভুক্ত করা হয়, যা এবারও বহাল।

এ নতুন পণ্য/নতুন বাজার সম্প্রসারণের আগে ৪ শতাংশ হারে সহায়তা দেওয়া হতো। এবারও তা বহাল রাখা হয়েছে। আগে যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও ইইউ ব্যতীত অন্যান্য দেশে নগদ সহায়তা দেওয়া হতো। এবার এর সঙ্গে যুক্ত হয়েছে যুক্তরাজ্যও। এই চার দেশে নতুন পণ্য বা বাজারে নগদ সহায়তা দেওয়া হবে না।

আর বস্ত্র খাতে নতুন বাজার সম্প্রসারণের আওতায় যুক্তরাষ্ট্র, কানাডা ও ইইউভুক্ত দেশগুলোতে বাড়তি নগদ সহায়তা দেওয়া হয় না। যুক্তরাজ্য ইইউ থেকে বের হয়ে যাওয়ায় দেশটিতে রপ্তানিতেও যে নতুন বাজার সম্প্রসারণের আওতায় বাড়তি নগদ সহায়তা মিলবে না, তা জানানো হয়েছে।

গত অর্থবছরের মতো এবারও বিশেষায়িত অঞ্চল তথা বেজা, বেপজা ও হাইটেক পার্কে অবস্থিত সব ধরনের প্রতিষ্ঠান রপ্তানির বিপরীতে নগদ সহায়তা পাবে। গত অর্থবছরের আগ পর্যন্ত বিশেষায়িত অঞ্চলে অবস্থিত শুধু দেশীয় কোম্পানি নগদ সহায়তা পেত। গত অর্থবছর থেকে বিশেষায়িত অঞ্চলের ‘এ’ টাইপ তথা বিদেশি এবং ‘বি’ টাইপ তথা যৌথ মালিকানার প্রতিষ্ঠানের প্রক্রিয়াজাত কৃষিপণ্য রপ্তানির বিপরীতে ৪ শতাংশ হারে নগদ সহায়তা দেওয়া হচ্ছে।

এম/

আরো পড়ুন:

‘সার বিতরণে কেউ অনিয়ম-দুর্নীতি করলে প্রয়োজনে জেল-জরিমানা’

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ