spot_img
27 C
Dhaka

২৯শে নভেম্বর, ২০২২ইং, ১৪ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯বাংলা

বিয়ের বেনারসি কিনতে যা মাথায় রাখা উচিত

- Advertisement -

লাইফস্টাইল ডেস্ক, সুখবর ডটকম: বিয়েতে অন্যান্য শাড়ির তুলনায় বেনারসি শাড়ি পরার চল এখনো বর্তমান। তবে বিয়ের দিন আজকাল নানা রঙের শাড়ি নিয়ে এক্সপেরিমেন্ট চলে। অনেকেই লাল পরেন। আবার অনেকেই পরেন মেরুন, গোলাপি বা নীল। অনেকে আবার সাদা রঙের বেনারসিও পরেন।

আবার একেবারে অন্য রঙের অর্থাৎ কমলা, সবুজ, নীল এরকমও অনেকে পরেন। তবে বিয়েতে লাল শাড়ি পড়ার ঐতিহ্য পুরোনো হওয়ার নয়! লাল ও মেরুন রঙের শাড়ি বা লেহেঙ্গাই বেশিরভাগ কনের পছন্দের তালিকায় থাকে প্রথমেই।

যদিও অতীতের তুলনায় বর্তমানে ফ্যাশন সচেতনদের সংখ্যা বেড়েছে, এমনকি বিয়ের পোশাকেও এসেছে ভিন্ন। যেমন-আগেকার দিনে বেনারসি শাড়িতে রূপালি জরির কাজ থাকতো।

এখনকার বেনারসিতে আর সেই কাজ থাকে না। এছাড়া শাড়িতে অনেকে আলাদা করে পাড় বসানো থাকে। আজকাল মিনেকারীর বেনারসিরও বেশ চল হয়েছে। তাছাড়া বর্তমানে ডিজাইনার পোশাকের কদর বেড়েছে।

আবার বিখ্যাত ডিজাইনারদের কালেকশনেও বিয়ের লেহঙ্গা, শাড়ি মানেই তাতে মেরুন রং থাকবেই। লাল রঙের পাশাপাশি বিয়েতে বেনারসির কদরও আজও কমেনি।

বেনারসি শাড়ির প্রতি সব নারীরই আকর্ষণ থাকে তুঙ্গে। আপনিও যদি বিয়েতে বেনারসি শাড়ি পরতে চান, তাহলে তা কেনার আগে অবশ্যই কয়েকটি বিষয় মাথায় রাখবেন-

দাম কম হলেই কেনা ঠিক হবেনা
বর্তমানে নকল বেনারসিতে ছেয়ে গেছে বাজার। অনেকেই কম দামে বেনারসি পেলেই কিনে নেন। এতে আসলে লাভ কিছু হয় না। কারণ কম দামের এ ধরনের শাড়ি কিন্তু আসল নয়। আসল বেনারসির দাম সর্বনিম্ন ৮-১০ হাজার টাকা থেকে আরও বেশি হবে।

হাতে নিয়ে দেখতে হবে
আসল বেনারসি শাড়ির দু’পাশেই ঘন সুতোর কাজ থাকে। অন্যদিকে নকল বেনারসির উল্টো পিঠ খসখসে হতে পারে। রূপালি ও সোনালি রঙের জরি সুতা দিয়ে বেনারসি শাড়ি বোনা হয়।

হাত দিয়ে দেখলেই আপনি এর মান বুঝতে পারবেন। আবার খেয়াল করুন শাড়ির জরি যেন ম্যাট ফিনিশ হয়। না হলে কিন্তু অতিরিক্ত চকচক করবে।

গায়ের রং বুঝে শাড়ি কিনুন
প্রত্যেকেরই ত্বকের রং ভিন্ন হয়। সব রঙের পোশাক সব ধরনের ত্বকের রঙের সঙ্গে মেলে না। তাই পোশাক বা শাড়ি বেছে নেওয়ার আগে খেয়াল রাখতে হবে, সেই শাড়ির রং যেন আমাদের ত্বকের রংকে আরও বেশি করে হাইলাইট করে। আপনার ত্বক বেশি উজ্জ্বল হলে আরও উজ্জ্বল শেড বেছে নিতে পারেন। আর না হলে একটু ডার্ক শেডও বেছে নিতে পারেন।

শাড়ি ট্রায়াল দিতে হবে
পছন্দের শাড়িটি গায়ে জড়িয়ে নিয়ে ট্রায়াল দিতে ভুলবেন না। গায়ে জড়িয়ে শাড়িটিতে আপনাকে কেমন মানাচ্ছে তা দেখে নিন।

 অতিরিক্ত কাজ করা শাড়ি কেনা ঠিক হবেনা
বেনারসি যেন ছোট বুটি কিংবা বড় বুটির হয়। জাল কাজ এড়িয়ে চলার চেষ্টা করুন। কারণ বিয়েতে কনের সাজের বেশিরভাগ জুড়েই থাকে বেনারসি। বেনারসিতে যদি অতিরিক্ত নকশা থাকে, ভারী কাজের হয় তাহলে ব্লাউজ, গয়না, ওড়না সবই চাপা পড়ে যায়।

চওড়া পাড়ের বেনারসি না কেনা ভাল
চওড়া পাড়ের বেনারসি কিনবেন না। এতে দেখতে খাটো ও মোটা লাগে দেখতে, আবার শাড়ি পিন করতে গেলেও অসুবিধা হয়। তাই ৪ ইঞ্চির বেশি চওড়া পাড় না কেনাই ভালো।

এসি/

 আরো পড়ুন:

চুল পড়া কমাতে কোন তেলটি উপকারী?

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ