spot_img
31 C
Dhaka
spot_imgspot_imgspot_imgspot_img

৭ই অক্টোবর, ২০২২ইং, ২২শে আশ্বিন, ১৪২৯বাংলা

সর্বশেষ

বাংলাদেশসহ ৩ দেশের অমুসলিমদের নাগরিকত্ব দেয়ার প্রক্রিয়া শুরু করল ভারত

- Advertisement -

ডেস্ক রিপোর্ট, সুখবর ডটকম: বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে যাওয়া অমুসলিম শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেছে ভারত। গতকাল ২৮ মে এ ব্যাপারে নির্দেশনা জারি করেছে ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তাতে বলা হয়েছে, “ওই তিন দেশ থেকে ভারতে শরণার্থী হিসেবে যাওয়া অমুসলিমরা নাগরিকত্বের জন্য আবেদন করতে পারবেন। ভারতের গুজরাট, রাজস্থান, ছত্তীসগঢ়, হরিয়ানা ও পাঞ্জাবের ১৩টি জেলায় আবেদন করা যাবে। মুসলিম ব্যতীত হিন্দু, শিখ, জৈন, বৌদ্ধ প্রভৃতি ধর্মের বাসিন্দারা এই আবেদনের জন্যযোগ্য হিসেবে বিবেচিত হবেন।”

কিন্তু সেই তালিকায় পশ্চিমবঙ্গের নাম নেই। বিধানসভা ভোটের সময় নাগরিকত্ব আইনের আওতায় পশ্চিমবঙ্গের শরণার্থীদের আশ্বাস দিলেও প্রথম পর্বে রাখা হলো না তাদের নাম। এর আগে ২০১৯ সালে ভারতে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন পাস হওয়ার পর উত্তাল পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছিল। এরপর আসামে নাগরিকত্ব তালিকায় বহু হিন্দুর নাম বাতিলের ঘটনায় প্রশ্ন উঠেছিল সিএএ-র কার্যকরিতা নিয়ে।

আরোও পড়ুন: শ্রীলংকাকে ২০ কোটি ডলার ঋণ সহায়তা দিচ্ছে বাংলাদেশ

এরপর করোনা পরিস্থিতির জেরে স্থগিত হয়ে থাকে সেই প্রক্রিয়া। কিন্তু গতকাল শুক্রবার ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে জানানো হয়েছে যে, অমুসলিম শরণার্থীদের ভারতীয় নাগরিকত্ব দেওয়ার কাজ শুরু হবে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রকাশিত সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন সিএএ ২০১৯-এর মাধ্যমে ভারতে বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে আসা হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান, জৈন, শিখ ও পার্সিদের সহজেই নাগরিকত্ব দেওয়ার প্রক্রিয়া করা শুরু করা হচ্ছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, “১৯৫৫ সালের নাগরিকত্ব আইন এবং ২০০৯ সালের নিয়ম অনুযায়ী এই নির্দেশনা কার্যকর করতে হবে। কারণ, ২০১৯ সালে আইনে পরিণত হলেও, এখন পর্যন্ত সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন (সিএএ)- সংক্রান্ত নিয়ম প্রণয়ন করেনি কেন্দ্রীয় সরকার। বলা হয়েছে, ২০১৪ সালের ১৪ ডিসেম্বরের মধ্যে এখানে এসেছেন, তারা আবেদন করতে পারবেন।

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, “বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে আগত মানুষদের করা আবেদনের সত্যতা প্রথমে যাচাই করে দেখবেন সংশ্লিষ্ট রাজ্যের স্বরাষ্ট্রসচিব কিংবা জেলা শাসকরা। সবকিছু ঠিক থাকলে তবেই তাদের ভারতীয় নাগরিক হিসেবে নাম নথিভুক্ত করে নাগরিকত্বের প্রশংসাপত্র দেওয়া হবে।”
সূত্র: কালের কণ্ঠ/ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ