spot_img
20.4 C
Dhaka

১লা ডিসেম্বর, ২০২২ইং, ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯বাংলা

চীনে কোভিড লকডাউনের কারণে আইফোনের বাজারে ধস

- Advertisement -

ডেস্ক রিপোর্ট, সুখবর বাংলা: চীনে চলমান শূন্য কোভিড নীতির জন্য, আইফোনের সর্ববৃহৎ ফ্যাক্টরি ফক্সকন কোম্পানি গত ২ নভেম্বর থেকে ৭ দিনের জন্য প্রাতিষ্ঠানিকভাবে লকডাউন ঘোষণা করেছে। টেক জায়ান্ট ঘোষণা করেছে যে, তাদের চীনা ফ্যাক্টরিগুলোর কাজ তুলনামূলক হারে হ্রাস পেয়েছে।

অ্যাপলের এক কর্মকর্তা জানান, “আমরা কোভিড-১৯ এর ভয়াবহতা দেখেছি। আর তাই কোম্পানির শ্রমিকদের স্বাস্থ্য এবং সুরক্ষাকেই গুরুত্ব দিচ্ছি।”

“আমরা জানি যে জনগণের মধ্যে আইফোন ১৪ প্রো এবং আইফোন ১৪ প্রো ম্যাক্সের চাহিদা ব্যাপক। কিন্তু চলমান অবস্থায় এখন এর উৎপাদন কম হতে পারে এবং গ্রাহকদের তাদের কাঙ্ক্ষিত ফোনটি পাওয়ার জন্যে হয়তো একটু অপেক্ষা করার প্রয়োজন হতে পারে। ”

এ ঘোষণা হয়তো বিনিয়োগকারীদের হতাশ করবে কারণ তারা ভেবেছিল চীন খুব তাড়াতাড়ি সমস্ত বিধিনিষেধ তুলে দিবে। এমনকি চীনের লকডাউন শেষ হয়ে যাওয়ার গুজবের কারণে চীনা স্টক মার্কেটও ব্যাপক হারে বেড়েছিল।

যদিও চীনের এই কঠোর নীতির ফলে দেশটিকে অর্থনৈতিকভাবে ব্যাপক ক্ষতির সম্মুখীন হতে হচ্ছে, চীনের নেতা শি জিনপিং এই নীতি থেকে সরে আসার জন্য এখনও প্রস্তুত নন।

সাম্প্রতিক পরিসংখ্যানে দেখা যায় যে বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম অর্থনৈতিক দেশটি তার শূন্য কোভিড নীতির কারণে বিশ্বব্যাপী মন্দার মতো বিশাল বড় একটি সমস্যার সম্মুখীন হয়েছে।

গত সোমবারে প্রকাশিত চীনের একটি বাণিজ্যিক পরিসংখ্যানে দেখা যায়, অক্টোবর মাসে দেশটির আমদানি ও রপ্তানি উল্লেখযোগ্য হারে কমে গেছে। এটি ২০২০ সালের মে মাসের পর প্রথম মন্দা। সেপ্টেম্বর মাসে যে বৈদেশিক শিপমেন্ট থেকে লাভের পরিমাণ ছিল ৫.৭% তা অক্টোবরে এসে ০.৩% কমে গিয়েছে।

গত রবিবার দেশটিতে ৫৬৪৩ জনের সংক্রমণের খবর পাওয়া যায়, যা গত ছয় মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ। মধ্য চীনের হেনান প্রদেশের রাজধানী, ঝেংঝুতে ফক্সকন কোম্পানি অবস্থিত। এখানে প্রায় ১০ মিলিয়ন লোকের বাস। গত সোমবার এখানে ৩৬৮৩ জন কোভিড আক্রান্ত হয় এবং ২২ জন্য মৃত্যুবরণ করে।

কারখানার শ্রমিকদের মাঝেও কোভিড সংক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত করা হয়। যার ফলেই কোম্পানিটিতে লকডাউন ঘোষণা করা হয়। হঠাৎ লকডাউনের ফলে বাকি শ্রমিকেরা আতঙ্কিত হয়ে কোম্পানি ছেড়ে পালিয়ে যান। গত সোমবার কোম্পানিটি একটি ঘোষণায় জানান, যেসব শ্রমিকেরা ১০ অক্টোবর থেকে ৫ নভেম্বর কোম্পানি ছেড়ে পালিয়েছেন, তারা যদি আবার ফিরে আসেন তবে তাদের ৫০০ ইউয়ান (৬৯ মার্কিন ডলার) এককালীন বোনাস হিসেবে দেওয়া হবে। সেই সাথে প্রতি ঘন্টায় তাদের বেতন আরো ৩০ ইউয়ান করে বাড়বে।

তাইওয়ান ভিত্তিক এক সংস্থা জানায় তারা মহামারীর প্রকোপ বন্ধ করতে এবং সবকিছু আবার স্বাভাবিক করে উৎপাদন প্রক্রিয়া পুনরায় চালু করার জন্য হেনান প্রদেশের প্রাদেশিক সরকারের সাথে কাজ করছেন।

ফক্সকন, যা আনুষ্ঠানিকভাবে হন হাই প্রিসিশন ইন্ডাস্ট্রি নামে পরিচিত, বিশ্বব্যাপী আইফোন চালানের ৭০% এখান থেকেই হয়।

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ