spot_img
20 C
Dhaka

২৯শে জানুয়ারি, ২০২৩ইং, ১৫ই মাঘ, ১৪২৯বাংলা

ইন্দোনেশিয়ায় যৌন নিষেধাজ্ঞা : ছাড় পাচ্ছেন পর্যটকরা

- Advertisement -

ডেস্ক নিউজ, সুখবর ডটকম: বিয়ে বহির্ভূত যৌন সম্পর্ককে অপরাধ গণ্য করে পাস হওয়া নতুন আইনে ইন্দোনেশিয়া ঘুরতে যাওয়া পর্যটকদের ছাড় দেওয়া হবে। দেশটির কর্মকর্তাদের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানায় বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ‘বালি বঙ্কিং ব্যান’ নামে পরিচিত এই নতুন আইনে অবিবাহিত দম্পতিরা যে কোনো জায়গায় একসঙ্গে সহবাস করলে ছয় মাস পর্যন্ত এবং এক বছর পর্যন্ত কারাদণ্ডের বিধান রাখে। তবে বালির গভর্নর জানিয়েছেন, কর্তৃপক্ষ পর্যটকদের বৈবাহিক অবস্থা পরীক্ষা করবে না, যেমন একজন বিবাহিত বা অবিবাহিত কিনা।

নতুন আইনটি তিন বছরের মধ্যে কার্যকর হবে বলে আশা করা হচ্ছে, তবে এটি আইনি বাধার সম্মুখীন হতে পারে বলে ধারণা করছে বিবিসি। মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ যেখানে ধর্মীয় রক্ষণশীলতা বৃদ্ধি পাচ্ছে, সম্প্রতি তার দণ্ডবিধিতে ব্যাপক পরিবর্তন করেছে, নতুন আইনটি তারই অংশ।

যদিও বহির্বিশ্বে শুধুমাত্র বিবাহবহির্ভূত যৌনতার নিষেধাজ্ঞাই বেশি মনোযোগ আকর্ষণ করেছে। কিন্তু নতুন দণ্ডবিধি প্রেসিডেন্ট ও ভাইস-প্রেসিডেন্টের সমালোচনাকেও অপরাধের অন্তর্ভুক্ত করে, যা অনেক ইন্দোনেশিয়ান নাগরিকদের জন্য উদ্বেগজনক।

জাতিসংঘ এসব আইন নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করলেও ইন্দোনেশিয়ার কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, আইন ‘ইন্দোনেশিয়ান মূল্যবোধ’ দ্বারা প্রাধান্য পেয়েছে।

গভর্নর ওয়ায়ান কোস্তের

এদিকে পর্যটন নিয়ে আতঙ্কে ব্যবসায়ীরা। তারা আশঙ্কা করছে, এই আইনগুলো পর্যটকদের প্রতি ইন্দোনেশিয়ার আকর্ষণ কমিয়ে দেবে, যা দেশের অর্থনীতিতে একটি বড় ধাক্কাও দিতে পারে। ২০১৯ সালে এক কোটি ৬০ লাখের বেশি মানুষ ইন্দোনেশিয়ায় ঘুরতে গিয়েছিলেন।

বিবাহবহির্ভূত যৌন সম্পর্ক নিষিদ্ধ এই নতুন আইনের আওতায় স্থানীয়দের পাশাপাশি বিদেশিরাও পড়েন। কিন্তু ইন্দোনেশিয়ার কর্মকর্তারা এই আশঙ্কা দূর করার চেষ্টা করছেন যে বিদেশিরা আইনের অধীনে শাস্তির মুখোমুখি হবে না।

সেখানকার গভর্নর ওয়ায়ান কোস্তের বলেন, ‘বালি বালির মতোই স্বাচ্ছন্দ্যদায়ক, ঘোরার জন্য নিরাপদই থাকবে। হোটেল বা অন্য কোনো বাসস্থানে থাকার সময় পর্যটকদের তাদের বৈবাহিক অবস্থার প্রমাণ দিতে হবে না এবং স্থানীয় কর্মকর্তারা এসব বিষয়ে খোঁজ নিতে যাবেন না।

ইন্দোনেশিয়ার উপ-বিচারমন্ত্রী এডওয়ার্ড ওমর শরীফ হায়ারিয়েজ আশ্বস্ত করেছেন যে বিদেশিদের সাজা হবে না। তিনি বলেন, ‘আমি বিদেশী পর্যটকদের অনুরোধ করছি, দয়া করে ইন্দোনেশিয়ায় আসুন, কারণ এই নতুন আইনের অধীনে আপনাকে চার্জ করা হবে না।’

দেশটির সরকার জানিয়েছে, নতুন দণ্ডবিধি অনুসারে, বিবাহ বহির্ভূত সহবাস ও যৌন সম্পর্কের বিরুদ্ধে তখনই বিচার করা হবে যখন অভিযুক্তের স্ত্রী, সন্তান বা অভিভাবক অভিযোগ করবেন। এই বিধানের অধীনে বিদেশীদের বিচারের সম্ভাবনা ক্ষীণ।

এম এইচ/ 

আরও পড়ুন:

দাওয়াতপত্র, প্রচারপত্র, বিজ্ঞাপনে প্লাস্টিক আবরণ ব্যবহার করা যাবে না

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ