spot_img
20 C
Dhaka

৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২২ইং, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯বাংলা

ইউক্রেনের যে শহরে এখনো ফুল ফুটছে

- Advertisement -

ডেস্ক প্রতিবেদন, সুখবর বাংলা:  শহরে যেন বসন্তের ছোঁয়া লেগেছে, রাস্তার দুপাশে গাছে শোভা পাচ্ছে নানা বাহারি ফুল। জনজীবনে সবকিছুই স্বাভাবিক। নিত্যদিনের মতোই এখানে বের হচ্ছে সবাই। রাস্তায় গাড়ির চলাচলও বেশ লক্ষণীয়। পূর্বদিকে রাশিয়ার সামরিক অভিযান চললেও পুরোপুরি স্বাভাবিক এই এলাকা।

ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চল রাশিয়ার সামরিক অভিযানে বিধ্বস্ত এলাকায় পরিণত হলেও এর ঠিক উল্টো চিত্র পশ্চিমাঞ্চলের শহর উজগরদে। তবে শহর ছেড়ে অনেকে পাড়ি জমিয়েছেন স্লোভাকিয়া সীমান্ত হয়ে ইউরোপে, অনেকেই আবার সীমান্ত পার হয়ে ফিরছেন দেশে।

রাশিয়ার সামরিক অভিযানের দুই মাস অতিবাহিত হলেও এই ছোট শহর এখনো কেঁপে ওঠেনি বোমার আঘাতে।
যতই স্বাভাবিক পরিস্থিতির মাঝে থাকুক না কেন, আতঙ্ক তো রয়েছেই। আবার অনেকে যুদ্ধের কারণে পূর্বাঞ্চল থেকে এখানে এসে সাময়িকভাবে বসবাস শুরু করেছেন। সাহায্য করছেন অন্যদের।

ইউক্রেনীয় নাগরিক ইগর দ্রিমিন বলেন, ‘প্রায় এক মাস ধরে আমি কিয়েভে নেই। আমার বন্ধুরা আমার খবরাখবর রাখছে।’
পাশেই স্লোভাকিয়ার সীমান্ত। সীমান্ত হয়ে ইউক্রেনের এই শহরটিতে ফিরে আসছে অনেকে। এখান থেকে রেলে করে চলে যাচ্ছে বিভিন্ন গন্তব্যে।

রাশিয়ার এক জ্যেষ্ঠ আইনপ্রণেতা ও রুশ ফেডারেল কাউন্সিল’স ফরেন অ্যাফেয়ার্স কমিটির ডেপুটি চেয়ারম্যান সিনেটর আন্দ্রেই ক্লিমোভ অভিযোগ করেন, ইউক্রেনের কিছু অংশে নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার পরিকল্পনা করছে পোল্যান্ড। এর আগে চলতি সপ্তাহে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের এক ঘনিষ্ঠ মিত্র বলেন, রাষ্ট্র হিসেবে ইউক্রেন ক্রমেই পতনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে এবং এর থেকে কয়েকটি তৈরি রাষ্ট্র জন্ম নিতে পারে।

এদিকে ইউক্রেন ও পূর্ব ইউরোপে অস্ত্র সরবরাহের ব্যাপারে পশ্চিমা দেশগুলোকে ফের হুঁশিয়ারি দিয়েছে রাশিয়া। ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী লিজ ট্রাস  ইউক্রেনে আরও বেশি অস্ত্র পাঠানোর জন্য মিত্রদের প্রতি আহ্বান জানান। ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, শুধু ইউক্রেন নয়, জর্জিয়া ও মলদোভায়ও অস্ত্র পাঠাতে হবে। যেন তারা নিজেদের সার্বভৌমত্ব ও অখণ্ডতা ধরে রাখতে পারে।

লিজ ট্রাসের এ আহ্বানের জবাবে ক্রেমলিন মুখপাত্র দিমিত্রি পেশকভ হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, ইউক্রেন, জর্জিয়া ও মলদোভায় যদি পশ্চিমারা অস্ত্র পাঠাতেই থাকে, তাহলে এগুলো ইউরোপের নিরাপত্তার জন্য হুমকি হয়ে দাঁড়াবে এবং এই অঞ্চল আরও অস্থিতিশীল হয়ে পড়বে।

আরো পড়ুন:

ইউরোপের চার দেশ রাশিয়ার গ্যাস কিনছে রুবলে

- Advertisement -

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফলো করুন

25,028FansLike
5,000FollowersFollow
12,132SubscribersSubscribe
- Advertisement -

সর্বশেষ