Thursday, January 20, 2022
Thursday, January 20, 2022
Homeবিনোদনআমার কাছে ভিউ বড় ফ্যাক্টর নয় : বাপ্পা মজুমদার

আমার কাছে ভিউ বড় ফ্যাক্টর নয় : বাপ্পা মজুমদার

danish

বিনোদন প্রতিবেদক, সুখবর বাংলা: গায়ক ও সংগীত পরিচালক বাপ্পা মজুমদার-এর ‘হে পাথর’ শিরোনামের গানটি আলোচিত হয়েছে। গানের সূত্র ধরে কথা হয় আরও বিভিন্ন বিষয়ে—

নতুন গানে কেমন প্রতিক্রিয়া পাচ্ছেন?

-(হাসি), ‘নিকুচি করি আমি’ লাইনটা সবাই ভীষণ পছন্দ করেছে। ভালো প্রতিক্রিয়া পাচ্ছি, খুবই ভালো। একদমই ভিন্ন ধরনের একটি গান। এখন পর্যন্ত যারাই গানটি নিয়ে কথা বলেছে, সবই ইতিবাচক। এই গানের বড় কৃতিত্ব গানটির গীতিকার মহসীন মেহেদীর। গানের মূল উপজীব্য হচ্ছে মানবতা। তাই সবাই গানটির সঙ্গে সবাই একাত্ম হতে পারছে। যদিও এই গানের কোটি কোটি ভিউ হয়নি, তারপরও মানুষের যে ভালোবাসার ধরন, তা কোটি কোটি ভিউয়ের চেয়ে কম নয়।

গানপ্রেমী মানুষের ভালোবাসা নাকি কোটি কোটি ভিউ, কোনটি আপনার কাছে প্রাধান্য পায়?

-কোটি কোটি ভিউয়ের অনেক গান তো আমরা অনেক সময় জানিও না, শুনিও না। কিন্তু এখন পর্যন্ত আমার গান যারাই শুনেছে, দারুণ সব কথা বলেছে; যা অনুপ্রেরণার। দারুণ সব মন্তব্য করছে। আমার ইউটিউব প্ল্যাটফর্মে যেসব সাবস্ক্রাইবার আছে, তা অর্গানিক, কোনো বুস্টিং হয় না। যেটা সত্য, সেটাই দেখাচ্ছে। আমার তো মনে হয়, গানের কথা, সম্ভবত গাওয়া, সুর এবং গানের ভিডিওটিও চমৎকারভাবে বানিয়েছে সিয়াম।

পূজা কেমন কাটালেন?

-ভালো কেটেছে। বউ, বাচ্চা নিয়ে আনন্দে কেটেছে।

আপনার মেয়ে পিয়েতার বয়স দুই হতে যাচ্ছে সে কি গিয়েছিল মণ্ডপে?

-এবারই প্রথম মণ্ডপে গেল। গতবার তো করোনা মহামারির কারণে যেতে পারেনি। এবার গিয়ে ভীষণ খুশি সে। মেয়ের খুশি দেখে মনটা ভরে গেছে। তবে এ ধরনের উৎসবে মা-বাবা দুজনকে ভীষণ মিস করি। মা-বাবা থাকলে পূজা তো অন্য রকম।

কোটি ভিউ নিয়ে কথা বলছিলেন এই কোটি ভিউ নিয়ে আপনি কী ভাবছেন?

-ব্যক্তিগতভাবে আমার কাছে ভিউ বড় ফ্যাক্টর নয়। গানটা ভালো হওয়া খুব জরুরি। গান ভালো হলে সেটার একটা প্রশংসা আসেই। সব সময় প্রমাণও পেয়েছি। যদিও এখন একটা বাজে সংস্কৃতি শুরু হয়েছে, ভিউ দিয়ে শিল্পী বিচার করা। আমি একদমই তা করি না। তাই আমি মনে করি, গানের প্রতি মনোযোগটা রাখতে পারলে ভালো হয়।

নতুন গানের খবর বলুন

-বিউটিফুল ভয়েসেস নামে একটা অ্যালবাম করেছি। একটা গানের ভিডিওর শুটিং করলাম। তাশফীর গাওয়া এই গানের সম্পাদনা চলছে। খুব সাধারণ ছিমছাম একটা ভিডিও। মনে হচ্ছে, গানটা দর্শকেরা পছন্দ করবে। এর মধ্যে ‘যুদ্ধ জয়ের কিশোর নায়ক’ নামের একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রের আবহ সংগীতের কাজ করছি। ‘লিডার: আমিই বাংলাদেশ’ চলচ্চিত্রের একটি গানও করছি। গানটিতে পান্থ কানাইয়ের কণ্ঠ দেওয়ার কথা।

বিউটিফুল ভয়েসসঅ্যালবামে কতজন কণ্ঠ দিলেন?

-শুরুতে পরিকল্পনা করেছিলাম নয়জনের। আলিফ আলাউদ্দীনের শরীরটা ভালো নয়। একটু সুস্থ হলেই ওর গানটা করে ফেলব। এ ছাড়া আটজনের গানের রেকর্ডিং মোটামুটিভাবে শেষ। গানের শিল্পীরা হচ্ছে আঁখি আলমগীর, কোনাল, এলিটা, কনা, টিনা রাসেল, রমা, জয়িতা ও তাশফী।

ইদানীং ধরনের অ্যালবামের কাজ হতে দেখা যায় না এমনটা কেন ভাবলেন?

-এটা আমার একটা পাগলামি। আর কিছু নয়। (হাসি)। একটা কথা বলতে চাই, এই প্রকল্প সফলই হয়েছে যারা যারা গেয়েছে, সবার আন্তরিক অংশগ্রহণে। সবাই মনপ্রাণ থেকে কাজ করেছে। এখানে কেউই বাণিজ্যিক চিন্তা থেকে কাজটা করেনি। প্রত্যেকে ভালোবাসা নিয়ে কাজ করেছে, যা খুবই সিগনিফিক্যান্ট ব্যাপার।

সঞ্জীব চৌধুরীর জন্ম মৃত্যুবার্ষিকীতে দলছুটের কোনো বিশেষ পরিকল্পনা আছে?

-২০২০ সালের ডিসেম্বরে সঞ্জীব অ্যালবামটা মুক্তি দেওয়ার কথা ছিল। কোভিডের কারণে পারিনি। এ বছরও সম্ভবত পুরো অ্যালবাম রিলিজ করব না। সঞ্জীবদার মৃত্যুদিন আসলে পালনও করতে চাই না। আমরা তাঁর জন্মদিন উদ্‌যাপনে বেশি আগ্রহী। আমার মনে হয়, এবারের জন্মদিনে হয়তো নতুন অ্যালবাম থেকে একটা বা দুটো গান মুক্তি দিতে পারি। সমস্যা হলো, এখন তো গান করলে ভিডিও বানাতেও হয়। তাই বিষয়টা নিয়ে ভাবছি।

সুত্র: প্রথম আলো

 

আরো পড়ুন:

এবার বলিউডে বাঁধন

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments